সূচী চ - ন

 

চক্ষে আমার তৃষ্ণা ওগো    (প্রকৃতি|চণ্ডালিকা)
চপল তব নবীন আঁখি দুটি    (প্রেম)
চরণরেখা তব যে পথে দিলে লেখি    (প্রেম ও প্রকৃতি)
চরাচর সকলই মিছে মায়া, ছলনা    (প্রেম ও প্রকৃতি)
চল্ চল্ ভাই ত্বরা করে মোরা    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|বাল্মীকিপ্রতিভা| কালমৃগয়া)
চলি গো, চলি গো, যাই গো চলে    (পূজা|ফাল্গুনী)
চলিয়াছি গৃহপানে    (পূজা ও প্রার্থনা)
চলে ছলোছলো নদীধারা    (প্রকৃতি)
চলে যাবি এই যদি তোর মনে থাকে    (প্রেম ও প্রকৃতি)
চলে যায় মরি হায় বসন্তের দিন    (প্রকৃতি)
চলেছে ছুটিয়া পলাতকা হিয়া    (নাট্যগীতি)
চলেছে তরণী প্রসাদপবনে    (পূজা ও প্রার্থনা)
চলো নিয়ম-মতে    (নাট্যগীতি|তাসের দেশ)
চলো যাই, চলো    (স্বদেশ)
চাঁদ, হাসো হাসো    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|মায়ার খেলা)
চাহি না সুখে থাকিতে হে    (পূজা ও প্রার্থনা)
চিঁড়েতন, হর্তন, ইস্কাবন—    (নাট্যগীতি|তাসের দেশ)
চিত্রাঙ্গদা রাজকুমারী    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চিত্রাঙ্গদা)
চির-পুরানো চাঁদ    (নাট্যগীতি)
চিরসখা, ছেড়ো না মোরে ছেড়ো না    (পূজা)
চুরি হয়ে গেছে রাজকোষ    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
চোখ যে ওদের ছুটে চলে গো    (বিচিত্র|অরূপরতন)


ছাড়্ গো তোরা ছাড়্ গো    (প্রকৃতি|ফাল্গুনী)
ছাড়ব না ভাই, ছাড়ব না    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|বাল্মীকিপ্রতিভা)
ছি ছি, কুৎসিত কুরূপ সে    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চিত্রাঙ্গদা)
ছি ছি, চোখের জলে ভেজাস নে আর মাটি    (স্বদেশ)
ছি ছি, মরি লাজে, মরি লাজে    (প্রেম)
ছিন্ন পাতার সাজাই তরণী    (পূজা)


জগতে তুমি রাজা, অসীম প্রতাপ    (পূজা)
জগতের পুরোহিত তুমি    (আনুষ্ঠানিক সংগীত)
জনগণমন-অধিনায়ক জয় হে ভারতভাগ্যবিধাতা    (স্বদেশ)
জয় জয় জয় হে জয় জ্যোতির্ময়    (নাট্যগীতি)
জয় জয় তাসবংশ-অবতংস    (নাট্যগীতি|তাসের দেশ)
জয় জয় পরমা নিষ্কৃতি হে    (পূজা)
জয় হোক জয় হোক    (আনুষ্ঠানিক সংগীত)
জয় ভৈরব, জয় শঙ্কর    (পূজা)
জয়যাত্রায় যাও গো    (প্রেম)
জয় রাজরাজেশ্বর ! জয় অরূপসুন্দর    (পূজা ও প্রার্থনা)
জয়তি জয় জয় রাজন্    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|কালমৃগয়া)
জরজর প্রাণে, নাথ    (পূজা)
জল এনে দে রে বাছা    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|কালমৃগয়া)
জল দাও আমায় জল দাও    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চণ্ডালিকা)
জলে-ডোবা চিকন শ্যামল    (প্রেম ও প্রকৃতি)
জাগ’ আলসশয়নবিলগ্ন    (বিচিত্র|তপতী)
জাগ’ জাগ’ রে জাগ’ সঙ্গীত    (পূজা)
জাগরণে যায় বিভাবরী    (প্রেম|শাপমোচন)
জাগে নি এখনো জাগে নি    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চণ্ডালিকা)
জাগো হে রুদ্র, জাগো    (পূজা|তপতী)
জাগ্রত বিশ্বকোলাহল-মাঝে    (পূজা)
জানি জানি এসেছ এ পথে মনের ভুলে    (প্রেম ও প্রকৃতি)
জানি, জানি হল যাবার আয়োজন    (প্রেম)
জানি জানি তোমার প্রেমে সকল প্রেমের    (পূজা)
জানি তুমি ফিরে আসিবে আবার, জানি    (প্রেম)
জানি হে যবে প্রভাত হবে    (পূজা)
জীবন যখন ছিল ফুলের মতো    (পূজা)
জীবনে আজ কি প্রথম এল বসন্ত    (প্রেম|মায়ার খেলা)
জীবনে এ কি প্রথম বসন্ত এল    (প্রেম ও প্রকৃতি)
জীবনের কিছু হল না হায়    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|বাল্মীকিপ্রতিভা)
জ্বল্‌ জ্বল্‌ চিতা, দ্বিগুণ দ্বিগুণ    (নাট্যগীতি)


ঝম্ ঝম্ ঘন ঘন    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|কালমৃগয়া)
ঝরঝর বরিষে বারিধারা    (প্রকৃতি)
ঝর ঝর রক্ত ঝরে কাটা মুণ্ড বেয়ে    (নাট্যগীতি)
ঝরো ঝরো ঝরো ভাদরবাদর    (প্রকৃতি)
ঝরো-ঝরো ঝরো-ঝরো ঝরে রঙের ঝর্না    (প্রকৃতি)
ঝাঁকড়া চুলের মেয়ের কথা    (প্রেম ও প্রকৃতি)


ঠাকুরমশয় দেরি না সয়    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|কালমৃগয়া)


ডাকিছ কে তুমি তাপিত জনে    (পূজা)
ডাকিছ শুনি জাগিনু প্রভু    (পূজা)
ডাকিল মোরে জাগার সাথি    (পূজা)
ডাকে বার বার ডাকে    (পূজা)
ডুবি অমৃতপাথারে– যাই ভুলে চরাচর    (পূজা)
ডেকেছেন প্রিয়তম, কে রহিবে ঘরে    (পূজা ও প্রার্থনা)


ঢাকো রে মুখ, চন্দ্রমা, জলদে    (জাতীয় সংগীত)


তপস্বিনী হে ধরণী    (প্রকৃতি)
তপের তাপের বাঁধন কাটুক রসের বর্ষণে    (প্রকৃতি)
তব অমল পরশরস    (পূজা)
তব প্রেম সুধারসে মেতেছি    (পূজা ও প্রার্থনা)
তবু পারি নে সঁপিতে প্রাণ    (জাতীয় সংগীত)
তবে আয় সবে আয়    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|বাল্মীকিপ্রতিভা)
তবে কি ফিরিব ম্লানমুখে সখা    (পূজা ও প্রার্থনা)
তবে সুখে থাকো, সুখে থাকো    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|মায়ার খেলা)
তরীতে পা দিই নি আমি    (বিচিত্র)
তরুণ প্রাতের অরুণ আকাশ    (প্রেম ও প্রকৃতি)
তরুতলে ছিন্নবৃন্ত মালতীর ফুল    (নাট্যগীতি)
তাই আমি দিনু বর    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চিত্রাঙ্গদা)
তাই হোক তবে তাই হোক    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চিত্রাঙ্গদা)
তার অন্ত নাই গো যে আনন্দে    (পূজা)
তার বিদায়বেলার মালাখানি    (প্রেম)
তারে কেমনে ধরিবে, সখী    (প্রেম|মায়ার খেলা)
তারে দেখাতে পারি নে কেন প্রাণ    (প্রেম|মায়ার খেলা)
তারে দেহো গো আনি    (প্রেম ও প্রকৃতি)
তারো তারো, হরি, দীনজনে    (পূজা ও প্রার্থনা)
তাঁহার অসীম মঙ্গললোক হতে    (আনুষ্ঠানিক সংগীত)
তাঁহার আনন্দধারা জগতে যেতেছে বয়ে    (পূজা ও প্রার্থনা)
তাঁহার প্রেমে কে ডুবে আছে    (পূজা ও প্রার্থনা)
তাঁহারে আরতি করে চন্দ্র তপন    (পূজা)
তিমির অবগুন্ঠনে বদন তব ঢাকি    (প্রকৃতি)
তিমিরবিভাবরী কাটে কেমনে    (পূজা)
তুই অবাক করে দিলি    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চণ্ডালিকা)
তুই কেবল থাকিস সরে সরে     (পূজা)
তুই ফেলে এসেছিস কারে    (প্রেম|ফাল্গুনী)
তুই যে আমার বুক-চেরা ধন     (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চণ্ডালিকা
তুই রে বসন্তসমীরণ    (নাট্যগীতি)
তুমি অতিথি, অতিথি আমার    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চিত্রাঙ্গদা)
তুমি আছ কোন্‌ পাড়া    (নাট্যগীতি)
তুমি আপনি জাগাও মোরে    (পূজা)
তুমি আমাদের পিতা    (পূজা)
তুমি আমায় করবে মস্ত লোক    (নাট্যগীতি)
তুমি আমায় ডেকেছিলে ছুটির নিমন্ত্রণে    (প্রেম)
তুমি ইন্দ্রমণির হার    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
তুমি উষার সোনার বিন্দু    (বিচিত্র)
তুমি একলা ঘরে বসে বসে কী সুর বাজালে    (পূজা)
তুমি কাছে নাই ব’লে হেরো    (পূজা ও প্রার্থনা)
তুমি কি গো পিতা আমাদের    (পূজা ও প্রার্থনা)
তুমি কে গো, সখীরে কেন    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|মায়ার খেলা)
তুমি কোন্‌ পথে যে এলে পথিক    (প্রেম)
তুমি ছেড়ে ছিলে, ভুলে ছিলে ব’লে    (পূজা)
তুমি জানো, ওগো অন্তর্যামী    (পূজা)
তুমি তৃষ্ণার শান্তি, সুন্দরকান্তি     (প্রকৃতি|চিত্রাঙ্গদা)
তুমি তো সেই যাবেই চ’লে    (প্রেম ও প্রকৃতি)
তুমি ধন্য ধন্য হে, ধন্য তব প্রেম    (পূজা)
তুমি পড়িতেছ হেসে তরঙ্গের মতো এসে    (নাট্যগীতি)
তুমি বাহির থেকে দিলে বিষম তাড়া    (পূজা)
তুমি মোর পাও নাই পরিচয়    (প্রেম)
তুমি যে আমারে চাও আমি সে জানি    (পূজা)
তুমি যে এসেছ মোর ভবনে    (পূজা)
তুমি সুন্দর, যৌবনঘন রসময় তব মূর্তি    (পূজা)
তুমি হে প্রেমের রবি আলো করি চরাচর    (আনুষ্ঠানিক সংগীত)
তৃষ্ণার শান্তি, সুন্দরকান্তি     (প্রকৃতি|চিত্রাঙ্গদা)
তোমরা হাসিয়া বহিয়া চলিয়া যাও    (বিচিত্র)
তোমাদের একি ভ্রান্তি    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
তোমাদের দান যশের ডালায়    (বিচিত্র)
তোমায় আমায় মিলন হবে ব’লে    (পূজা)
তোমায় দেখে মনে লাগে ব্যথা    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
তোমায় নতুন করে পাব ব’লে    (পূজা|ফাল্গুনী)
তোমায় যতনে রাখিব হে    (পূজা ও প্রার্থনা)
তোমায় সাজাব যতনে কুসুমে রতনে    (নাট্যগীতি)
তোমার আনন্দ ওই গো    (আনুষ্ঠানিক|শাপমোচন)
তোমার আসন পাতব কোথায়    (প্রকৃতি)
তোমার আসন শূন্য আজি    (বিচিত্র|তপতী)
তোমার কটি-তটের ধটি    (নাট্যগীতি)
তোমার গীতি জাগালো স্মৃতি    (প্রেম)
তোমার গোপন কথাটি, সখী    (প্রেম)
তোমার দুয়ার খোলার ধ্বনি    (পূজা)
তোমার দেখা পাব ব’লে    (পূজা)
তোমার নাম জানি নে, সুর জানি    (প্রকৃতি)
তোমার পায়ের তলায় যেন গো রঙ লাগে    (প্রেম|তাসের দেশ)
তোমার প্রেমের বীর্যে    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
তোমার বাস কোথা যে পথিক ওগো    (প্রকৃতি)
তোমার ভুবনজোড়া আসনখানি     (পূজা)
তোমার মন বলে, ‘চাই, চা ই     (প্রেম)
তোমার মোহন রূপে কে রয় ভুলে    (প্রকৃতি)
তোমার শেষের গানের রেশ নিয়ে    (প্রেম)
তোমার সুরের ধারা ঝরে যেথায়    (পূজা)
তোমার হাতের অরুণলেখা    (পূজা)
তোমার হাতের রাখীখানি    (পূজা)
তোমারি তরে, মা, সঁপিনু এ দেহ    (জাতীয় সংগীত)
তোমারি নামে নয়ন মেলিনু    (পূজা)
তোমারি মধুর রূপে ভরেছ ভুবন    (পূজা)
তোমারি রাগিণী জীবনকুঞ্জে    (পূজা)
তোমারি সেবক করো হে    (পূজা)
তোমারে জানি নে হে    (পূজা ও প্রার্থনা)
তোমারেই প্রাণের আশা কহিব    (পূজা ও প্রার্থনা)
তোর আপন জনে ছাড়বে তোরে    (স্বদেশ)
তোর শিকল আমায় বিকল করবে না    (পূজা)
তোরা আমার যাবার বেলাতে     (পূজা)
তোরা নেই বা কথা বললি     (স্বদেশ)
তোরা বসে গাঁথিস মালা    (প্রেম ও প্রকৃতি)
তোলন-নামন পিছন-সামন    (নাট্যগীতি|তাসের দেশ)


থাক্ থাক্ তবে থাক্    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চণ্ডালিকা)
থাক্ থাক্ মিছে কেন    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চিত্রাঙ্গদা)
থাকতে আর তো পারলি নে মা  (নাট্যগীতি|বিসর্জন)
থাম্ থাম্, কী করিবি   (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|বাল্মীকিপ্রতিভা)
থাম্ রে, থাম্ রে তোরা    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
থামাও রিমিকি ঝিমিকি বরিষন    (প্রকৃতি)
থামো, থামো– কোথায় চলেছ    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)



দই চাই গো, দই চাই    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চণ্ডালিকা)
দখিন-হাওয়া জাগো জাগো    (প্রকৃতি)
দয়া করো, দয়া করো প্রভু    (নাট্যগীতি)
দয়া দিয়ে হবে গো মোর     (পূজা)
দাও হে আমার ভয় ভেঙে দাও    (পূজা)
দাও হে হৃদয় ভরে দাও    (পূজা ও প্রার্থনা)
দাঁড়াও আমার আঁখির আগে    (পূজা)
দাঁড়াও, কোথা চলো    (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
দাঁড়াও, মন, অনন্ত ব্রহ্মাণ্ড-মাঝে    (পূজা)
দাঁড়াও, মাথা খাও, যেয়ো না সখা    (প্রেম ও প্রকৃতি)
দাঁড়িয়ে আছ তুমি আমার গানের ও পারে (পূজা)
দারুণ অগ্নিবাণে রে হৃদয় তৃষায় হানে রে (প্রকৃতি)
দিন অবসান হল
    (পূজা)
দিনগুলি মোর সোনার খাঁচায় রইল না    (বিচিত্র)
দিন তো চলি গেল, প্রভু, বৃথা (পূজা ও প্রার্থনা)
দিন পরে যায় দিন(প্রেম)
দিন ফুরালো হে সংসারী(পূজা)
দিন যদি হল অবসান(পূজা)
দিন যায় রে দিন যায় বিষাদে(পূজা)
দিনশেষে বসন্ত যা প্রাণে গেল বলে(প্রকৃতি)
দিনশেষের রাঙা মুকুল(প্রেম)
দিনান্তবেলায় শেষের ফসল(প্রেম)
দিনের পরে দিন যে গেল (প্রেম|তপতী)
দিনের বিচার করো(আনুষ্ঠানিক)
দিনের বেলায় বাঁশি তোমার  (পূজা)
দিবস রজনী আমি যেন কার (প্রেম|মায়ার খেলা)
দিবানিশি করিয়া যতন (পূজা ও প্রার্থনা)
দিয়ে গেনু বসন্তের এই গানখানি (প্রেম)
দীপ নিবে গেছে মম নিশীথসমীরেপ্রেম)
দীর্ঘ জীবনপথ, কত দুঃখতাপ (পূজা)
দুই হাতে– কালের মন্দিরা যে (কালের মন্দিরা যে)(বিচিত্র)
দুই হৃদয়ের নদী একত্র মিলিল যদি(আনুষ্ঠানিক)
দুইটি হৃদয়ে একটি আসন পাতিয়া(আনুষ্ঠানিক)
দুঃখ এ নয়, সুখ নহে গো(পূজা ও প্রার্থনা)
দুঃখ দিয়ে মেটাব দুঃখ তোমার(প্রেম|চণ্ডালিকা)
দুখ দিয়েছ, দিয়েছ ক্ষতি নাই(পূজা)
দুখ দূর করিলে, দরশন দিয়ে মোহিলে প্রাণ(পূজা ও প্রার্থনা)
দুঃখ যদি না পাবে তো(পূজা|অরূপরতন)
দুঃখ যে তোর নয় রে চিরন্তন(পূজা)
দুঃখরাতে, হে নাথ, কে ডাকিলে (পূজা)
দুখের কথা তোমায় বলিব না (পূজা ও প্রার্থনা)
দুঃখের তিমিরে যদি জ্বলে(পূজা)
দুঃখের বরষায় চক্ষের জল যেই নামল (পূজা)
দুখের বেশে এসেছ ব’লে(পূজা)
দুখের মিলন টুটিবার নয়(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|মায়ার খেলা)
দুঃখের যজ্ঞ-অনল-জ্বলনে (প্রেম)
দুজনে এক হয়ে যাও(আনুষ্ঠানিক সংগীত)
দুজনে দেখা হল   (প্রেম ও প্রকৃতি)
দুজনে যেথায় মিলিছে সেথায়(আনুষ্ঠানিক)
দুটি প্রাণ এক ঠাঁই(আনুষ্ঠানিক)
দুয়ার মোর পথপাশে (বিচিত্র)
দুয়ারে দাও মোরে রাখিয়া (পূজা)
দুয়ারে বসে আছি, প্রভু(পূজা ও প্রার্থনা)
দূরদেশী সেই রাখাল ছেলে(বিচিত্র)
দূর রজনীর স্বপন লাগে(বিচিত্র)
দূরে কোথায় দূরে দূরে   (পূজা)
দূরে দাঁড়ায়ে আছে(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|মায়ার খেলা)
দূরের বন্ধু সুরের দূতীরে(প্রেম)
দে তোরা আমায় নূতন করে দে   (প্রেম|চিত্রাঙ্গদা)
দে পড়ে দে আমায় তোরা   (প্রেম|শাপমোচন)
দে লো, সখী, দে পরাইয়ে গলে   (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|মায়ার খেলা)
দেওয়া নেওয়া ফিরিয়ে-দেওয়া (পূজা)
দেখ্‌ চেয়ে দেখ্‌ তোরা জগতের উৎসব(পূজা ও প্রার্থনা)
দেখ্ দেখ্ দুটো পাখি(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|বাল্মীকিপ্রতিভা)
দেখ লো সজনী চাঁদনি রজনী (হম যব না রব, সজনী)(ভানুসিংহের পদাবলী)
দেখব কে তোর কাছে আসে(নাট্যগীতি)
দেখা না-দেখায় মেশা(বিচিত্র)
দেখা যদি দিলে ছেড়ো না আর (পূজা ও প্রার্থনা)
দেখায়ে দে কোথা আছে(প্রেম ও প্রকৃতি)
দেখে যা, দেখে যা, দেখে যা লো তোরা(প্রেম)
দেখো ওই কে এসেছে(নাট্যগীতি)
দেখো চেয়ে দেখো ওই কে আসিছে(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|মায়ার খেলা)
দেখো দেখো, দেখো, শুকতারা আঁখি মেলি চায়(প্রকৃতি)
দেখো, সখা, ভুল করে ভালোবেসো না(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|মায়ার খেলা)
দেখো হো ঠাকুর, বলি এনেছি মোরা(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|বাল্মীকিপ্রতিভা)
দেবতা জেনে দূরে রই দাঁড়ায়ে(পূজা)
দেবাধিদেব মহাদেব(পূজা)
দেশ দেশ নন্দিত করি(স্বদেশ)
দেশে দেশে ভ্রমি তব দুখ গান গাহিয়ে(জাতীয় সংগীত)
দৈবে তুমি কখন নেশায় পেয়ে(প্রেম)
দোলে দোলে দোলে প্রেমের দোলন-চাঁপা(প্রকৃতি)
দোষী করিব না, করিব না তোমারে(প্রেম)
দোষী করো আমায়, দোষী করো(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চণ্ডালিকা)
দ্বারে কেন দিলে নাড়া ওগো মালিনী(প্রেম)



ধনে জনে আছি জড়ায়ে হায় (পূজা)
ধর্ ধর্, ওই চোর (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
ধরণী, দূরে চেয়ে কেন আজ আছিস জেগে (প্রকৃতি)
ধরণীর গগনের মিলনের ছন্দে (প্রকৃতি)
ধরা দিয়েছি গো আমি আকাশের পাখি (প্রেম)
ধরা সে যে দেয় নাই, দেয় নাই (প্রেম|শ্যামা)
ধায় যেন মোর সকল ভালোবাসা (পূজা)
ধীরে ধীরে ধীরে বও ওগো উতল হাওয়া (প্রকৃতি)
ধীরে ধীরে প্রাণে আমার এসো হে (নাট্যগীতি)
ধীরে বন্ধু, ধীরে ধীরে (পূজা|ফাল্গুনী)
ধূসর জীবনের গোধূলিতে ক্লান্ত আলোয় (প্রেম)
ধূসর জীবনের গোধূলিতে মলিন (প্রেম)
ধ্বনিল আহ্বান মধুর গম্ভীর প্রভাত-অম্বর-মাঝে (পূজা)



নদীপারের এই আষাঢ়ের প্রভাতখানি (পূজা)
নব আনন্দে জাগো আজি  (পূজা)
নবকুন্দধবলদলসুশীতলা(প্রকৃতি)
নবজীবনের যাত্রাপথে(আনুষ্ঠানিক সংগীত)
নব নব পল্লবরাজি  (প্রকৃতি)
নব বৎসরে করিলাম পণ(জাতীয় সংগীত)
নব বসন্তের দানের ডালি(প্রকৃতি|চণ্ডালিকা)
নমি নমি চরণে(পূজা)
নমি নমি, ভারতী, তব কমলচরণে(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|বাল্মীকিপ্রতিভা)
নমো, নমো, নমো করুণাঘন, নমো হে(প্রকৃতি)
নমো, নমো, নমো। নমো, নমো, নমো। তুমি ক্ষুধার্তজনশরণ্য(প্রকৃতি)
নমো নমো, নমো নমো, নমো নমো, তুমি সুন্দরতম(প্রকৃতি)
নমো, নমো। নমো, নমো। নমো, নমো। নির্দয় অতি(প্রকৃতি)
নমো নমো শচীচিতরঞ্জন, সন্তাপভঞ্জন(নাট্যগীতি)
নমো নমো, হে বৈরাগী (প্রকৃতি)
নমো যন্ত্র, নমো– যন্ত্র, নমো(বিচিত্র)
নয় এ মধুর খেলা (পূজা)
নয়ন ছেড়ে গেলে চলে(পূজা)
নয়ন তোমারে পায় না দেখিতে (পূজা)
নয়ন তোমারে পায় না দেখিতে (পূজা ও প্রার্থনা)
নয়ন মেলে দেখি আমায় বাঁধন বেঁধেছে(প্রেম|প্রায়শ্চিত্ত)
নয়ান ভাসিল জলে(পূজা)
নহ মাতা, নহ কন্যা, নহ বধূ(নাট্যগীতি)
না, কিছুই থাকবে না(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চণ্ডালিকা)
না-গান-গাওয়ার দল রে (আমরা না-গান-গাওয়ার দল রে)(বিচিত্র)
না গো, এই যে ধুলা আমার না এ   (বিচিত্র)
না চাহিলে যারে পাওয়া যায়   (প্রেম)
না জানি কোথা এলুম(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|কালমৃগয়া)
না, দেখব না, আমি দেখব না(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চণ্ডালিকা)
না, না, কাজ নাই, যেয়ো না বাছা(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|কালমৃগয়া)
না, না গো না, কোরো না ভাবনা(প্রেম)
না না না ডাকব না, ডাকব না (ডাকব না, ডাকব না) (প্রেম)
না না না, বন্ধু আমি অনেক করেছি বেচাকেনা(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
না না না সখী, ভয় নেই সখী, ভয় নেই(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|চিত্রাঙ্গদা)
না না নাই বা এলে যদি সময় নাই (নাই বা এলে যদি সময় নাই)(প্রেম)
না না, ভুল কোরো না গো (ভুল কোরো না)(প্রেম)
না বলে যায় পাছে সে (প্রেম)
না বলে যেয়ো না চলে (প্রেম|প্রায়শ্চিত্ত)
না বাঁচাবে আমায় যদি(পূজা)
না বুঝে কারে তুমি ভাসালে আঁখিজলে   (প্রেম|মায়ার খেলা)
না, যেয়ো না, যেয়ো নাকো   (প্রকৃতি|শাপমোচন)
না রে, না রে, ভয় করব না (ভয় করব না না রে)(প্রেম)
না রে, না রে, হবে না তোর স্বর্গসাধন   (পূজা)
না সখা, মনের ব্যথা(নাট্যগীতি)
নাই নাই নাই যে বাকি (সময় আমার নাই যে)   (প্রেম)
নাই নাই ভয়, হবে হবে জয়(স্বদেশ)
নাই বা এলে যদি সময় নাই [না না) নাই বা এলে যদি সময় নাই](প্রেম)
নাই বা ডাকো রইব তোমার দ্বারে(পূজা)
নাই ভয়, নাই ভয়, নাই রে(বিচিত্র)
নাই যদি বা এলে তুমি(প্রেম)
নাই রস নাই, দারুণ দাহনবেলা(প্রকৃতি)
নাচ্‌ শ্যামা, তালে তালে(নাট্যগীতি)
নাথ হে, প্রেমপথে সব বাধা ভাঙিয়া দাও(পূজা)
নাম লহো দেবতার(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)
নারীর ললিত লোভন লীলায়(প্রেম|চিত্রাঙ্গদা)
নাহয় তোমার যা হয়েছে তাই হল(বিচিত্র)
নাহি নাহি নিদ্রা (আজ নাহি নাহি নিদ্রা /আজি নাহি নাহি নিদ্রা)   (পূজা)
নিকটে দেখিব তোমারে(পূজা)
নিত্য তোমার যে ফুল ফোটে ফুলবনে   (পূজা)
নিত্য নব সত্য তব শুভ্র আলোকময়(পূজা)
নিদ্রাহারা রাতের এ গান   (প্রেম)
নিবিড় অন্তরতর বসন্ত এল প্রাণে  (প্রকৃতি)
নিবিড় অমা-তিমির হতে   (প্রকৃতি)
নিবিড় ঘন আঁধারে জ্বলিছে ধ্রুবতারা(পূজা)
নিবিড় মেঘের ছায়ায় মন দিয়েছি মেলে(প্রকৃতি)
নিভৃত প্রাণের দেবতা   (পূজা)
নিমেষের তরে শরমে বাধিল (প্রেম|মায়ার খেলা)
নিয়ে আয় কৃপাণ (গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|বাল্মীকিপ্রতিভা)
নির্জন রাতে নিঃশব্দ চরণপাতে (প্রেম ও প্রকৃতি)
নির্মল কান্ত, নমো হে নমো (প্রকৃতি)
নিশা-অবসানে কে দিল গোপনে আনি (পূজা)
নিশার স্বপন ছুটল রে   (পূজা)
নিশিদিন চাহো রে তাঁর পানে(পূজা)
নিশিদিন ভরসা রাখিস, ওরে মন, হবেই হবে (স্বদেশ)
নিশিদিন মোর পরানে প্রিয়তম মম(পূজা)
নিশি না পোহাতে জীবনপ্রদীপ জ্বালাইয়া যাও প্রিয়া(প্রেম)
নিশীথরাতের প্রাণ(প্রকৃতি)
নিশীথশয়নে ভেবে রাখি মনে (পূজা)
নিশীথে কী কয়ে গেল মনে(প্রেম)
নীরব রজনী দেখো মগ্ন জোছনায়(নাট্যগীতি)
নীরবে আছ কেন বাহিরদুয়ারে(পূজা)
নীরবে থাকিস, সখী   (প্রেম|শ্যামা)
নীল- অঞ্জনঘন পুঞ্জছায়ায় সম্‌বৃত অম্বর হে গম্ভীর(প্রকৃতি)
নীল আকাশের কোণে কোণে(প্রকৃতি)
নীল দিগন্তে ওই ফুলের আগুন লাগল(প্রকৃতি)
নীল নবঘনে আষাঢ়গগনে(প্রকৃতি)
নীলাঞ্জনছায়া, প্রফুল্ল কদম্ববন(প্রেম)
নূতন পথের পথিক হয়ে (নাট্যগীতি)
নূতন প্রাণ দাও, প্রাণসখা (পূজা)
নূপুর বেজে যায় রিনিরিনি(প্রেম)
নৃত্যের তালে তালে, নটরাজ(বিচিত্র)
নেহারো লো সহচরী(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|কালমৃগয়া)
ন্যায় অন্যায় জানি নে(গীতিনাট্য-নৃত্যনাট্য|শ্যামা)